আজ [bangla_date], [english_date]

শামসুদ্দিন হাসপাতালের করোনারোধক টানেলের ভেতর কুকুর ঘুমায়!

সিলহট রিপোর্টার :: হাসপাতালটি সিলেটের একমাত্র সরকারি ‘করোনা চিকিৎসালয়’। আরো দু’টি বেসরকারি হাসপাতালে করোনা রোগীর চিকিৎসা শুরু হলেও সিলেটবাসীর বেশি ভরসা শামসুদ্দিনেই। কিন্তু সেই হাসপাতালের করোনা প্রতিরোধক ‘ডিসইনফেকশন টানেল’র ভেতর শুয়ে আছে একাধিক কুকুর! যা সিলেটবাসীকে করেছে হতবাক ও মর্মাহত।

গতকাল মঙ্গলবার (৯ জুন) সিলেটের ডা. শহীদ শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালের জীবানুনাশক টানেলের ভিতর কয়েকটি কুকুরকে ঘুমিয়ে থাকতে দেখা যায়। এসময় করোনা টেস্টের জন্য নমুনা দিতে আসা মানুষজনকে টানেলের ভেতর দিয়ে না গিয়ে এর পাশ দিয়ে লাইনে দাঁড়াতে দেখা যায়। কুকুর ঘুমিয়ে থাকার জন্য টানেলের ভেতর দিয়ে যেতে না পেরে নমুনা দিতে আসা লোকজন এসময় ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

এদিকে, এমন অবস্থার একটি ছবি পরবর্তীতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে। যা দেখে সিলেটজুড়ে বইছে আলোচনা-সমালোচনার ঝড়। ফেসবুকে অনেকেই করছেন নেতিবাচক মন্তব্য।

জানা গেছে, সিলেট শহীদ শামসুদ্দিন আহমেদ হাসপাতালে আসা লোকজনকে জীবানুমুক্ত রাখতে ৭ ফুট উচ্চতা আর ৫ প্রস্থের এই ডিসইনফেকশন টানেল বা চেম্বার স্থাপন করেছেন কর্তৃপক্ষ। এর ভিতর দিয়ে ঢুকে শরীরে জলমিশ্রিত সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইট স্প্রে করে জীবানুমুক্ত হবেন হাসপাতালে আসা মানুষজন- এটাই উদ্দেশ্য। কিন্তু হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অবহেলায় টানেলটি মানুষের বদলে কুকুর ব্যবহার করছে- এমন দৃশ্যই দেখা যায় গতকাল।

এ বিষয়ে জানতে শামসুদ্দিন হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) সুশান্ত কুমার মহাপাত্রকে একাধিকবার মোবাইল ফোনে কল দিলে তিনি রিসিভ করেননি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap