আজ ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২১শে মে, ২০২২ ইং

চলে যাচ্ছে শীত, সিলেটে তবু কমছে না সবজির দাম

ডেস্ক রিপোর্টার :: দেশে প্রতিবছরই শীতকালে বিভিন্ন জাতের সবজিতে ভরপুর থাকে সিলেটের বাজার। দামও থাকে সাধ্যের মধ্যে। কিন্তু এবারে শীতের মৌসুম পেরোলেও নাগালে আসেনি শাকসবজির দাম। বরং কিছু সবজির দাম বেড়েছে। কয়েকটি সবজির মূল্য কেজিপ্রতি ১০০ টাকার ঘরে। সিলেট নগরীতে ঘুরে ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কথা বলে এসব তথ্য জানা গেছে।

সিলেট নগরীর বন্দরবাজারের ভাম্যমাণ সবজিবিক্রেতারা এ প্রতিবেদককে জানান, বাজারে প্রতিটি ভালো জাতের লাউ বিক্রি হচ্ছে ৭০ থেকে ৮০ টাকায়। যা স্বাভাবিকভাবে বিক্রি হয় ৪০ থেকে ৫০ টাকার মধ্যে। করলার কেজি বিক্রি হচ্ছে ৯০-১০০ টাকা। বরবটির কেজি ৮০-১০০ টাকা। একই দামে বিক্রি হচ্ছে কচুর লতি। প্রতিটি ফুলকপি ও বাঁধাকপি বিক্রি হচ্ছে ৩০ থেকে ৪০ টাকায়, যা প্রতিবছর এই সময়ে ১৫ থেকে ২০ টাকায় বিক্রি হয়। শিম বিক্রি হচ্ছে ৩৫ থেকে ৪০ টাকায়। যা এই সময়ে ৩০ টাকার মধ্যে থাকে। বেগুন বিক্রি হচ্ছে ৫০ থেকে ৬০ টাকা কেজি দরে। টমেটো বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৪৫ টাকা কেজি দরে, শসা বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৫০ টাকা কেজি। মুলা বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ২৫ টাকা কেজি দরে। এছাড়াও সবার কদরে থাকা সবজি আলুর দাম প্রতিবছর কেজি ১০টাকা পর্যন্ত নেমে আসলেও এবারে আটকে আছে ২৫টাকায়।

শাকসবজির দাম বাড়ার কারণ হিসেবে সবজি বিক্রেতা খসরু মিয়া বলেন, বাজারে চাহিদার তুলনায় সবজির সরবরাহ কম। বিভিন্ন এলাকা থেকে সবজির আমদানি এ বছর কিছুটা কম। তাই প্রতিবছর যে হারে সবজির দাম কমে আসে সেটা এ বছর কমছে না। তিনি বলেন, এবার সবজির দাম আর কমার সম্ভাবনা নেই। দিন যত যাবে সবজির দাম ততো মনে হয় বাড়বে।

বন্দরবাজারে সবজি কিনতে ব্যাংক কর্মকর্তা তমাল হক জানান, একটা লাউ ৫০-৬০ টাকার নিচে পাওয়া যায় না। অথচ অন্যান্য বছরে এ সময়ে ২৫-৩০ টাকায় লাউ পাওয়া যেতো। সহজলভ্য আলুও কিনতে হচ্ছে ২৫ টাকা কেজি দরে।

এদিকে, শাক-সবজির দাম না কমায় বিপাকে আছেন নিম্ন আয়ের মানুষ। বাড়তি মূল্যের নিত্যপণ্য ক্রয়ের পাশাপাশি নিয়মিত বেশি দামের সবজি কিনতে হিমশিম খাচ্ছেন তারা।

 

খবরসূত্র : সিলেটভিউ২৪

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap